shasthokothaxyz@gmail.com

+8801953906973

চোখের আইস্যাডোর ব্যবহার

চোখের আবেদন চিরদিনের। চোখই যে মনের কথা বলে দেয়! তাই একজোড়া সুন্দর চোখের অধিকারী হতে চায় যে কেউ।

fgggg Md Ashiqur Rahman ভিউ: 272

Logo

পোস্ট আপডেট 2021-01-12 00:07:53   10 months ago

চোখের আবেদন চোখ নিয়ে দুঃখও থাকে অনেকের, যদি চোখটা আরেকটু বড় হতো বা চোখটা আরেকটু সুন্দর হতো! চোখের সাজ নিয়ে তাই গবেষণার অন্ত নেই! প্রতিনিয়ত চোখের সাজের নানান ধরন অবলম্বন করে তাই অনেকেই চোখ সাজান।

চোখ সাজানোর আগে জেনে নিতে হবে ত্বকের ধরন। কারণ ত্বক অনুযায়ীই চোখ সাজানোর উপকরণ বেছে নিতে হয়। যদি আপনার ত্বক হয় তৈলাক্ত, তবে চোখে পাউডার আইশ্যাডো ব্যবহার করুন। আর যদি ত্বক শুষ্ক হয়, তাহলে ক্রিম আইশ্যাডো ব্যবহার করা উচিত। স্বাভাবিক ত্বক হলে যেকোনো ধরনের আইশ্যাডো ব্যবহার করতে পারবেন। আবার ক্রিম আইশ্যাডো আর পাউডার আইশ্যাডোর যৌথ ব্যবহারও চোখকে আকর্ষণীয় করে তুলতে পারে।


আরো পড়ুন

হৃদরোগের লক্ষণ এবং বাঁচার উপায়


চোখের মেকআপ করার পদ্ধতি একদিনে আয়ত্ত করা সম্ভব নয়। প্রয়োজন পড়ে প্রচুর প্র্যাকটিসের। কারণ চোখ আঁকা ও রং মেলানোর মুন্সিয়ানাতেই নির্ভর করে চোখের সৌন্দর্য। ফাইন্ডেশন লাগানোর সময় চোখের ওপর ও নিচে ভালো করে ফিনিশিং দিন। চোখের তলায় কালি থাকলে কনসিলার দিয়ে মিলিয়ে নিন। আর যদি ফেস পাউডার ব্যবহার করেন তাহলে ব্রাশ দিয়ে পাউডার ভালো ভাবে ঝেড়ে নিন। এরপর চোখের ওপর সারা পাতাজুড়ে বেস আইশ্যাডো লাগান। তারপর পোশাকের সাথে মিলিয়ে আইশ্যাডো চোখের ভেতর থেকে বাইরের দিকে লাগান। দুই বা তিনটি শেড মিলিয়েও লাগাতে পারেন। ভ্রূ’র ঠিক নিচে হাইলাইটার লাগান। কাজল শুধু চোখের ভেতর লাগান, উপরে ও নিচে আইলাইনার লাগান। যারা আইলাইনার ব্যবহার করতে চান না, তারা একটু গাঢ় করে কাজল লাগাতে পারেন। যদি মাস্কারা লাগান তাহলে লক্ষ্য রাখবেন, যেন চোখের পাপড়ি একটার সাথে আরেকটা লেগে না যায়। জমকালো কোনো অনুষ্ঠান রাতে হলে গ্লিটার ব্যবহার করতে পারেন। তবে দিনের অনুষ্ঠানে গ্লিটার ব্যবহার না করাই ভালো।



চোখের মেকআপ করে, চোখের রং, রেখা বদলে দিয়ে চোখের আকারেও পরিবর্তন আনা সম্ভব। শুধু হতে হবে একটুখানি কৌশলী!


যাদের চোখ ছোট আকৃতির তারা যতটা সম্ভব চোখে কম রং ব্যবহার করবেন। আইশ্যাডোর গাঢ় শেডের পরিবর্তে হালকা শেডগুলো ব্যবহার করুন। চোখের ওপরের সাথে রং মিলিয়ে নিচেও আইশ্যাডো ব্যবহার করলে চোখ বড় মনে হয়।


দুই চোখের মধ্যকার দূরত্ব বেশি হলে আইশ্যাডো চোখের ভেতর দিকের কোনায় লাগালে এবং চোখের পাতা ঘেঁষে সরু করে লাইনার দিলে তা বোঝা যাবে না।
-দুই চোখের মধ্যকার দূরত্ব কম হলে নাকের কাছাকাছি চোখের ভেতর দিকে হালকা রঙের আইশ্যাডো লাগালে চোখ একটু বিস্তৃত দেখাবে।


যাদের চোখ একটু বসা ধরনের তারা হালকা রঙের আইশ্যাডো ব্যবহার করুন। মাস্কারা বাদামি বা নীলচে রঙের ব্যবহার করুন।
যাদের চোখ ফোলা ফোলা বা উদ্ভাসিত ধরনের তারা চোখের ওপরে ও নিচের কোলঘেঁষে আইশ্যাডো লাগান এবং ভালো ভাবে মিশিয়ে দিন।


মেকআপ যেভাবেই করুন না কেন, তা ঘুমানোর আগে তুলে ফেলবেন অবশ্যই। কারণ বাসি মেকআপ হলো ত্বকের শত্রু। ভালো ক্লিনজার বা আই মেকআপ রিমুভার প্যাড দিয়ে মেকআপ তুলুন। মেকআপ তুলতে নারকেল তেলও ব্যবহার করতে পারেন

আরো পড়ুনঃ-

১ মাসেই ৫ কেজি ওজন কমানোর ডায়েট চার্ট



কমেন্ট


সাম্প্রতিক মন্তব্য


Logo

Upma tewari 10 months ago

Nc